1. masudkhan89@yahoo.com : admin :
  2. narsingdirawaaz1@gmail.com : Narsingdir Awaaz : Narsingdir Awaaz
শিরোনাম : :
মাহবুবুল হাসান ও আবদুল হালিম খান এর মৃত্যুতে শোক সভা, মিলাদ ও দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত মাধবদীতে আশিকুর রহমান পাভেল ফাউন্ডেশনের আয়োজনে অসহায়দের মধ্যে নগদ অর্থ ও খাবার বিতরণ মাধবদীতে ঈদ উপলক্ষে চাল বিতরণ। মাধবদীতে সাবেক চেয়ারম্যান মাহবুবুল হাসানের হত্যাকান্ডের প্রতিবাদে আলোচনা সভা ও দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত মাধবদীর আনন্দীতে সীমানা প্রাচীর নির্মাণে বাধা, থানায় অভিযোগ মাধবদীর শিল্পকে বাঁচানোর উদ্যোগ নিলেন নরসিংদী সদর উপজেলা চেয়ারম্যান মোঃ আনোয়ার হোসেন মাহাবুবুল হত্যার বিচারের দাবীতে প্রতিবাদ ও বিক্ষোভ মিছিল নরসিংদীতে বিশ্ব পরিবেশ দিবস উপলক্ষে আলোচনা, বৃক্ষ রোপন ও বিতরণ কর্মসূচী পালিত মাধবদীতে নিরবিচ্ছিন্ন বিদ্যুতের দাবিতে সমন্বয় কমিটি গঠন সন্ত্রাসীদের হাতে নিহত মাহাবুবুল হাসানের কবর জিয়ারত করলেন নরসিংদী সদর উপজেলা চেয়ারম্যান মোঃ আনোয়ার হোসেন

মেঘনার ভাঙন রোধে বালু উত্তোলন বন্ধের দাবিতে নরসিংদীতে মানববন্ধন

  • আপডেট সময়: সোমবার, ১১ অক্টোবর, ২০২১
  • ১০০ জন দেখেছেন

নাসিম আজাদ, নরসিংদী প্রতিনিধিঃনরসিংদীর রায়পুরার চাঁনপুরে নদী ভাঙ্গন থেকে গ্রাম রক্ষার জন্য মেঘনা নদী থেকে বালু উত্তোলন বন্ধের দাবিতে মানববন্ধন করেছে এলাকাবাসী। সোমবার (১১ অক্টোবর) দুপুরে নরসিংদী প্রেসক্লাবের সামনে এই মানববন্ধন করা হয়। এতে চাঁনপুর ইউনিয়নের বিভিন্ন পেশার তিন শতাধিক মানুষ অংশ নেন। মানববন্ধন শেষে জেলা প্রশাসকের মাধ্যমে প্রধানমন্ত্রীর নিকট স্মারকলিপি দেন এলাকাবাসী।
মানববন্ধনে বক্তারা বলেন, চাঁনপুর ইউনিয়নের মাঝের চর মৌজায় দীর্ঘদিন ধরে অপরিকল্পিতভাবে বালু মহাল সৃষ্টি করে ইজারা দিয়েছে জেলা প্রশাসন। ১৫-১৬ বছর ধরে ইজারাদাররা নির্ধারিত স্থান ছাড়াও তাদের ইচ্ছেমাফিক যত্রতত্র অবৈধভাবে বালু উত্তোলন করে আসছে। এতে রায়পুরা, চাঁনপুর ও পাড়াতলি ইউনিয়নের তিন গ্রাম নদীগর্ভে বিলীন হয়ে গেছে। প্রতি বছরই মাঝেরচর গ্রামের বাড়িঘর ও কৃষিজমি নদী গর্ভে বিলীন হচ্ছে। বাড়িঘর হারিয়ে নি:স্ব হচ্ছেন গ্রামের মানুষ। বালু উত্তোলন বন্ধের জন্য একাধিকবার জেলা প্রশাসনসহ সংশ্লিষ্ট প্রশাসনের নিকট লিখিত আবেদন জানালেও কোন পদক্ষেপ নেয়া হচ্ছে না। মানববন্ধন থেকে অবিলম্বে বালু মহালের নামে অপরিকল্পিত বালু উত্তোলন বন্ধের দাবি জানানো হয়।
মাঝেরচর গ্রামের বাসিন্দা মুফতি আল আমিন বলেন, ১৫-১৬ বছর ধরে মেঘনা নদীতে ২৫-৩০টি ড্রেজার দিয়ে অবৈধভাবে বালু উত্তোলনের কারণে রায়পুরা, চাঁনপুর ও পাড়াতলি ইউনিয়নের ছোটাবন, বাখরনগর ও সুলতানপুর গ্রাম নদীগর্ভে বিলীন হয়ে গেছে। বালু উত্তোলন বন্ধ না হওয়ায় তিন ইউনিয়নের আরও ৬/৭টি গ্রামের জমি, বাড়িঘর নদী গর্ভে বিলীন হয়ে প্রাকৃতিক দুর্যোগ সৃষ্টি হতে পারে।
মানববন্ধনে বক্তব্য রাখেন, চানপুর ইউনিয়ন পরিষদ সদস্য আব্দুল্লাহ আল মামুন, মাঝেরচর গ্রামের শিক্ষক কাউছার মাহমুদ, কৃষক সাফি উদ্দিন প্রমুখ।

সামাজিক যোগাযোগ এ শেয়ার করুন

একই বিভাগের আরও সংবাদ
© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত © ২০২১ নরসিংদীর আওয়াজ
ডিজাইন ও ডেভেলপমেন্ট @ ইজি আইটি সল্যুশন