1. masudkhan89@yahoo.com : admin :
  2. narsingdirawaaz1@gmail.com : Narsingdir Awaaz : Narsingdir Awaaz
শিরোনাম : :
মাহবুবুল হাসান ও আবদুল হালিম খান এর মৃত্যুতে শোক সভা, মিলাদ ও দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত মাধবদীতে আশিকুর রহমান পাভেল ফাউন্ডেশনের আয়োজনে অসহায়দের মধ্যে নগদ অর্থ ও খাবার বিতরণ মাধবদীতে ঈদ উপলক্ষে চাল বিতরণ। মাধবদীতে সাবেক চেয়ারম্যান মাহবুবুল হাসানের হত্যাকান্ডের প্রতিবাদে আলোচনা সভা ও দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত মাধবদীর আনন্দীতে সীমানা প্রাচীর নির্মাণে বাধা, থানায় অভিযোগ মাধবদীর শিল্পকে বাঁচানোর উদ্যোগ নিলেন নরসিংদী সদর উপজেলা চেয়ারম্যান মোঃ আনোয়ার হোসেন মাহাবুবুল হত্যার বিচারের দাবীতে প্রতিবাদ ও বিক্ষোভ মিছিল নরসিংদীতে বিশ্ব পরিবেশ দিবস উপলক্ষে আলোচনা, বৃক্ষ রোপন ও বিতরণ কর্মসূচী পালিত মাধবদীতে নিরবিচ্ছিন্ন বিদ্যুতের দাবিতে সমন্বয় কমিটি গঠন সন্ত্রাসীদের হাতে নিহত মাহাবুবুল হাসানের কবর জিয়ারত করলেন নরসিংদী সদর উপজেলা চেয়ারম্যান মোঃ আনোয়ার হোসেন

মাধবদীর রতন কে পৈত্রিক সম্পত্তি থেকে বঞ্চিত করার পায়তারা

  • আপডেট সময়: শুক্রবার, ৬ জানুয়ারী, ২০২৩
  • ৪৯ জন দেখেছেন

মাধবদী সংবাদদাতাঃ মাধবদী পৌরসভার ৩নং ওয়ার্ডের রতন চন্দ্রকে তার পৈত্রিক সম্পত্তি থেকে বঞ্চিত করার জন্য পদে পদে মামলা হামলার করে কোনঠাসা করছে তারই ভাতিজা সঞ্জয় গংরা।বহুসালিশ দরবার করেও কোন প্রকার সমাধান পাচ্ছে না ভুক্তভোগী রতন চন্দ্র। ঘটনার বিবরণে জানাযায় মৃত টোনাই মালি তার তিন পুত্র সুভাষ চন্দ্র, দিলিপ চন্দ্র ও রতন চন্দ্রকে রেখে মৃত্যু বরন করে। মৃত্যুকালে টোনাই মালি ২১শতাংশ বাড়ি ভিটে রেখে যায়। রতনকে পূজি করে সুভাষ চ্দ্র, দিলিপ চন্দ্র ২১শতাংশ বাড়ি ভিটি থেকে ১৪শতাংশ বিক্রি করে দেয়ায় বাকি ৭শতাংশের মালিক থাকে রতন চন্দ্র। এ ১৪শতাংশ জমি বিক্রি করার কথা রতন চন্দ্র দাস ও তার মাতা দূর্গারানীও জানত না।দূর্গা রানী মৃত্যুকালে রতনকে বলে যায় পুরো ৭শতাংশ বাড়ি তোমার। সে হিসেবে পৈত্রিক সম্পত্তি নামজারি করে বসবাস করতে থাকে ।কিন্তু রতন তার নিজ নামে নামজারি করিয়া পুরো সম্পত্তিতেই তিন ভাইসহ বসবাস করতে থাকে।গত দুই বছর আগে রতন চন্দ্রের বড় ভাই সুভাষ চন্দ্র মৃত্যু বরণ করলে তার তিন পুত্র সঞ্জয় গংরা রতন এর ওপর সম্পত্তির জন্য মারপিট সহ বিভিন্ন অত্যাচার চালিয়ে আসছে। বর্তমানে রতন তার প্রাপ্য ৭শতাংশ বাড়িতে ঘর নির্মান করতে গেলে বাধা দিয়ে মারপিট করে সঞ্জয় গংরা।এ ব্যাপারে মাধবদী পৌর সভার ৩নং ও ৮নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর দফায় দফায় কয়েকবার সালিশ দরবার করেও কোন সুরাহা করতে না পারায় রতন তার বাড়ি ঘর নির্মান করতে পারছে না বলে স্থানীয় এলাকাবাসী জানায়। রতন তার প্রাপ্য অংশ থেকে সেচ্ছায় ২শতাংশ ছেড়ে দিলেও তার ভাতিজা গংরা পাত্তা দিচ্ছে না।তার ভাতিজা সঞ্জয়রা এলাকার চিহ্নিত বখাটেদেরকে নিয়ে প্রতিনিয়ত রতনকে বাড়ি ছাড়া করার জন্য হুমকি দমকি দিয়ে আসছে। এ ব্যাপারে রতন বাদী হয়ে মাধবদী থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করে।পুলিশ অভিযোগের কথা স্বীকার করে বলেন এ ব্যাপারে আইনগত পদক্ষেপ গ্রহনের প্রস্তুতি চলছে।

সামাজিক যোগাযোগ এ শেয়ার করুন

একই বিভাগের আরও সংবাদ
© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত © ২০২১ নরসিংদীর আওয়াজ
ডিজাইন ও ডেভেলপমেন্ট @ ইজি আইটি সল্যুশন